রাজ্যে আধুনিক প্রযুক্তির ক্রীড়া পরিকাঠামো গড়ে তোলার উপর অগ্রাধিকার দেওয়া হয়েছে : যুব বিষয়ক ও ক্রীড়ামন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদন

আগরতলা, সেপ্টেম্বর ৪, : রাজ্যে আধুনিক প্রযুক্তির ক্রীড়া পরিকাঠামো গড়ে তোলার উপর অগ্রাধিকার দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি যুব সমাজকে খেলাধূলার প্রতি আকৃষ্ট করতে সরকার বিভিন্ন পদক্ষেপ নিয়েছে। আজ বাধারঘাটের দশরথ দেব স্টেট স্পোর্টস কমপ্লেক্সে সিন্থেটিক অ্যাথলেটিক্স ট্র্যাকের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করে একথা বলেন যুব বিষয়ক ও ক্রীড়ামন্ত্রী সুশান্ত চৌধুরী। উল্লেখ্য, এখানে খেলো ইন্ডিয়া প্রকল্পে এই ৪০০ মিটার দীর্ঘ ৮ লেন বিশিষ্ট বিশ্বমানের সিন্থেটিক অ্যাথলেটিক্স ট্রাকটি নির্মাণ করা হবে। এজন্য ব্যয় হবে ৭ কোটি টাকা। আগামী ১ বছরের মধ্যে এই ট্রাকের নির্মাণ কাজ সম্পন্ন করার লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে ক্রীড়ামন্ত্রী সুশান্ত চৌধুরী বলেন, রাজ্যকে দেশের খেলাধূলার মানচিত্রে আরও এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে বর্তমান সরকার বদ্ধপরিকর। এক্ষেত্রে সবাইকে সদর্থক, উদ্ভাবনী ও গঠনমূলক চিন্তা নিয়ে এগিয়ে আসতে হবে। তিনি আরও বলেন, ক্রীড়া প্রতিভার বিকাশের জন্য চাই উন্নত ক্রীড়া পরিকাঠামো। ইতিমধ্যেই এনএসআরসিসি-র পরিকাঠামো অনেকটাই উন্নত করা হয়েছে। তিনি বলেন, পরিকাঠামো উন্নয়নে অর্থের কোনও অভাব হবে না। এক্ষেত্রে কেন্দ্র এবং রাজ্য সরকার সবসময়ই সদর্থক ভূমিকা গ্রহণ করবে। তিনি রাজ্যের খেলাধূলার মানোন্নয়নে প্রথমেই ক্রীড়াক্ষেত্রে নিজেদের কি কি দুর্বলতা রয়েছে তা খুঁজে বের করার গুরুত্ব আরোপ করেন।

অনুষ্ঠানে ক্রীড়ামন্ত্রী শ্রী চৌধুরী বলেন, নিজেদের মূল্যায়ন করতে পারলেই সফলতা আসবে। প্রাক্তন খেলোয়াড়দের থেকেও মূল্যবান পরামর্শ নিয়ে রাজ্যের ক্রীড়া পরিকাঠামোর উন্নয়নে সরকার উদ্যোগ নেবে। করোনা অতিমারীর প্রকোপ কমে গেলে সারা রাজ্যের ক্লাবগুলিকে নিয়ে জেলাভিত্তিক ক্রিকেট, ফুটবল, হকি ইত্যাদি বিভিন্ন খেলার আয়োজন করার জন্য যুব বিষয়ক ও ক্রীড়া দপ্তর সচেষ্ট হবে। তিনি আশা প্রকাশ করেন এই সিন্থেটিক অ্যাথলেটিক্স ট্র্যাক রাজ্যের ক্রীড়া প্রতিভার বিকাশে সহায়ক ভূমিকা নেবে।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে পশ্চিম ত্রিপুরা জিলা পরিষদের সভাধিপতি অন্তরা সরকার দেব বলেন, বিগত সরকার এই দশরথ দেব স্টেট স্পোর্টস কমপ্লেক্সটি নির্মাণ করলেও এর সঠিক পরিকাঠামোগত উন্নয়নে উদ্যোগী হয়নি। তিনি রাজ্যের প্রতিটি স্কুলে যোগাকে চালু করার ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্টদের উদ্যোগী হওয়ার জন্য আহ্বান জানান। ছাত্রছাত্রীরা যাতে খেলাধূলার প্রতি আরও আকৃষ্ট হয় এবং জাতীয় ও আন্তর্জাতিক স্তরে অংশগ্রহণ করতে পারে তারজন্য শারীর শিক্ষকদের আরও নিষ্ঠা সহকারে কাজ করার উপর তিনি গুরুত্ব আরোপ করেন। এদিনের অনুষ্ঠানে স্বাগত ভাষণ রাখতে গিয়ে যুব বিষয়ক ও ক্রীড়া দপ্তরের সচিব বলেন, এই সিন্থেটিক ট্রাকটি জার্মানি থেকে আনা হবে। এদিনের অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন যুব বিষয়ক ও ক্রীড়া দপ্তরের অধিকর্তা সুবিকাশ দেববর্মা, উপঅধিকর্তা পদাশ্রী ড. দীপা কর্মকার সহ দপ্তরের শীর্ষ আধিকারিকগণ এবং শারীর শিক্ষক শিক্ষিকাগণ।


You can post your comments below  
নিচে আপনি আপনার মন্তব্য বাংলাতেও লিখতে পারেন।  
বিঃ দ্রঃ
আপনার মন্তব্য বা কমেন্ট ইংরেজি ও বাংলা উভয় ভাষাতেই লিখতে পারেন। বাংলায় কোন মন্তব্য লিখতে হলে কোন ইউনিকোড বাংলা ফন্টেই লিখতে হবে যেমন আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ড (Avro Keyboard)। আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ডের সাহায্যে মাক্রোসফট্ ওয়ার্ডে (Microsoft Word) টাইপ করে সেখান থেকে কপি করে কমেন্ট বা মন্তব্য বক্সে পেস্ট করতে পারেন। আপনার কম্পিউটারে আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ড বাংলা সফ্টওয়ার না থাকলে নিম্নে দেয়া লিঙ্কে (Link) ক্লিক করে ফ্রিতে ডাওনলোড করে নিতে পারেন।
 
Free Download Avro Keyboard  
Name *  
Email *  
Address  
Comments *  
 
 
Posted comments
Till now no approved comments is available.