দুর্নীতি ইসূতে বিজেপি-র বিলোনীয়ার বিধায়ক স্বদলীয় নেতার বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ আনলেন সাংবাদিক সন্মেলনে

নিজস্ব প্রতিবেদন

আগরতলা, এপ্রিল ৯, : জাল সই করিয়ে ভারত চন্দ্র নগর পঞ্চায়েত সমিতির চেয়ারপারসনের বিরুদ্ধে অনাস্থার নীল নকশা তৈরি হলো খোদ কৃষান সভার রাজ্য কমটি সহ সভাপতি মানিক দাস ওরফে কালা মানিকের বাড়িতে। আজ বিকালে এক সাংবাদিক সম্মেলনে বিভিন্ন তথ্য তুলে ধরে এই অভিযোগ করেন বিলোনিয়ার বিধায়ক অরুণ চন্দ্র ভৌমিক ।অভিযোগ, দুর্নীতির আঁতুড়ঘরে পরিণত হয়েছে বিলোনীয়া ভারত চন্দ্র নগর আরডি ব্লক। গত কমাস ধরে লাগাতর সংবাদ শিরোনামে উঠে আসছে ভারতচন্দ্র নগরের পঞ্চায়েত সমিতির ভাইস চেয়ারম্যান দুলাল গুহের দুর্নীতি প্রসংগ। ধান মাড়াই মেশিন, ঝাড়াই মেশিন থেকে শুরু করে একের পর এক দুর্নীতি প্রকাশ্যে আসছে। স্বাভাবিক কারণেই ভারত চন্দ্র নগর পঞ্চায়েত সমিতির চেয়ারপার্সন সহ আটজন সদস্য ভাইস চেয়ারম্যান দুলাল গুহ-র পদত্যাগের জন্য অনাস্থা এনে ভারত চন্দ্র নগর বিডিও-র কাছে কপি দিয়েছে। আর এই বিষয়ে বিজেপির প্রদেশ সভাপতি মানিক সাহা ৩রা এপ্রিল ভারতচন্দ্র নগর পঞ্চায়েত সমিতির সদস্যদের ডেকে সবিস্তারে শুনেন। তারই পাল্টা হিসেবে ব্লু প্রিন্ট রচনা হয় বিলোনিয়ায়। কিষান মোর্চার প্রদেশ সহ-সভাপতি মানিক দাস ওরফে কালা মানিক -এর বাড়িতে পঞ্চায়েত সমিতির দুই সদস্যদের ডেকে নিয়ে জোর করে সই করিয়ে নেওয়া হয় বলে অভিযোগ। পঞ্চায়েত সমিতির সদস্যদের অনুমান ভারতচন্দ্র নগরের চেয়ারপার্সন পুতুল পাল বিশ্বাস- এর বিরুদ্ধে অনাস্থা আনার জন্যই মানিক দাস ব্লু প্রিন্ট রচনা করছেন। পাশাপাশি যে সদস্যাকে নিয়ে সকাল বেলা মানিক দাস - এর বাড়িতে সই করেছিল প্রতিমা দাস ঘটক নিজ মুখে আজ সাংবাদিক সম্মেলনে তা স্বীকার করেন। তারই পরিপ্রেক্ষিতে আজ সন্ধ্যায় বিলোনিয়া ডাক বাংলায় বিধায়ক অরুণ চন্দ্র ভৌমিক, পুর পরিষদের প্রাক্তন সদস্য অনুপম চক্রবর্তী, ভারতচন্দ্র নগর পঞ্চায়েত সমিতির চেয়ারপার্সন পুতুল পাল বিশ্বাস, বিজেপি-র জেলা কমিটির সহ-সভাপতি গৌতম সরকার, সকলে মিলে এক সাংবাদিক সম্মেলন করেন। সাংবাদিক সম্মেলনে বিধায়ক অরুণ চন্দ্র ভৌমিক বলেন, মানিক দাস সিপিআই (এম) দলে থাকার সময় কোন পদে ছিল না। মানিক দাস- এর বিভিন্ন দুর্নীতি ও অপকর্মের কারণে সিপিআইএম থেকে তিনি বহিষ্কৃত হন। আর এই মাফিয়া মানিক দাস বর্তমানে বিজেপিতে তোলাবাজি শুরু করেছে। বিভিন্ন ধরনের অপকর্মের সাথে জড়িত বলে তথ্য তুলে ধরেন বিধায়ক অরুণ চন্দ্র ভৌমিক।

বিলোনিয়ার বিজেপি মন্ডল থেকে শুরু করে পঞ্চায়েত ও জেলার সমস্ত বিষয়ে নাক গলাচ্ছেন মানিক দাস। মানিক দাস শুধুমাত্র কৃষাণ মোচার সহ-সভাপতি , কি করে তিনি এই ধরনের অনৈতিক কাজ করতে পারেন তা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন বিধায়ক থেকে শুরু করে বিজেপির জন প্রতিনিধিরা।


You can post your comments below  
নিচে আপনি আপনার মন্তব্য বাংলাতেও লিখতে পারেন।  
বিঃ দ্রঃ
আপনার মন্তব্য বা কমেন্ট ইংরেজি ও বাংলা উভয় ভাষাতেই লিখতে পারেন। বাংলায় কোন মন্তব্য লিখতে হলে কোন ইউনিকোড বাংলা ফন্টেই লিখতে হবে যেমন আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ড (Avro Keyboard)। আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ডের সাহায্যে মাক্রোসফট্ ওয়ার্ডে (Microsoft Word) টাইপ করে সেখান থেকে কপি করে কমেন্ট বা মন্তব্য বক্সে পেস্ট করতে পারেন। আপনার কম্পিউটারে আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ড বাংলা সফ্টওয়ার না থাকলে নিম্নে দেয়া লিঙ্কে (Link) ক্লিক করে ফ্রিতে ডাওনলোড করে নিতে পারেন।
 
Free Download Avro Keyboard  
Name *  
Email *  
Address  
Comments *  
 
 
Posted comments
Till now no approved comments is available.