আমেদাবাদের মোতেরায় পৃথিবীর বৃহত্তর ক্রিকেট স্টেডিয়ামের পিচ তৈরীর দায়িত্বে ত্রিপুরার আশিস ভৌমিক

নিজস্ব প্রতিবেদন

আগরতলা, জানুয়ারি ২৩, : আমেদাবাদের মোতেরায় পৃথিবীর বৃহত্তম দর্শক আসন বিশিষ্ট ক্রিকেট স্টেডিয়ামের উদ্বোধন হচ্ছে আগামী ফেব্রুয়ারি মাসে। এর আগে অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্ন ক্রিকেট মাঠটি ছিল দর্শক আসনের দিক থেকে বৃহত্তম। মোতেরায় যে স্টেডিয়ামের উদ্বোধন হচ্ছে সেখানে একসাথে এক লাখ দশ হাজার দর্শক খেলা দেখতে পারবেন। এতদিন মেলবোর্নই এই প্রথম স্থানটি দখলে রেখেছিল। সেখানে দর্শক আসন সংখ্যা একলাখ এক হাজার।

এই মুহূর্তে ভারতের সেরা ও বৃহৎ বাউন্ডারি হল এই মোতেরায়। উত্তর - দক্ষিণে এটি ৭৫ গজ এবং পূর্ব - পশ্চিমে ৮৫ গজ। এখানে অবশ্য মেলবোর্ন একটু এগিয়ে। সেখানে বাউন্ডারি ১০০ গজ।

এই স্টেডিয়ামের পরিকল্পনা থেকে তৈরি করা পুরো কাজটা করেছে এল এন্ড টি বা লারসেন এন্ড টুব্র্রো সংস্থা। প্রায় আড়াই বছরের মধ্যেই স্টেডিয়ামের ক্লাব হাউস ও প্যাভিলিয়ন সহ পুরো স্টেডিয়ামের কাজ তারা শেষ করেন। নিয়ম অনুযায়ী স্টেডিয়ামের কাজ শেষ করার আঠার মাসের পরে পিচ ও আউট ফিল্ডের বাকি অংশের কাজ করতে হয়। গুজরাতের নিজস্ব কিউরেটর নিয়ে পিচের কাজ শুরু করেছিলেন দলজিৎ সিং। তবে শেষ করতে পারেন নি। ২০১৯ সাল থেকে এই কাজের দায়িত্ব নেন ত্রিপুরার আশিস ভৌমিক। তিনি এখন ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের চিফ কিউরেটর। গত চার মাসে অক্লান্ত পরিশ্রমে আশিস কাজটা শেষ করেন। পুরো বালির সাহায্যে এই আউট ফিল্ড তৈরি হয়েছে। এতে সুবিধা হবে যখন বৃষ্টি হবে। মুসলধারে বৃষ্টির বন্ধ হবার পর আধ ঘন্টার মধ্যেই এই মাঠ শুকিয়ে খেলার উপযুক্ত হয়ে যাবে।

এছাড়া স্টেডিয়ামের বিশেষত্ব হল কোন থাম বা স্তম্ভ নেই। শুধু ক্যান্টিলিভারে ওপর তৈরি। ফলে দর্শকের বসে খেলা দেখতে কোনও অসুবিধে হবেনা। কোন স্তম্ভ বাধা হয়ে দাঁড়াবেনা। এই ধরনের স্টেডিয়াম লখনৌ এর "একানা "স্টেডিয়ামটি শুধু রয়েছে যার দর্শক আসন হচ্ছে ৬৫ হাজার। ভারতের ক্রিকেট প্রেমীরা এখন পৃথিবীর বৃহত্তম দর্শক আসন বিশিষ্ট ক্রিকেট স্টেডিয়ামের উদ্বোধনের অপেক্ষায়। যার সাথে ত্রিপুরার নামও জড়িয়ে গেল আশিস ভৌমিকের মাধ্যমে।


You can post your comments below  
নিচে আপনি আপনার মন্তব্য বাংলাতেও লিখতে পারেন।  
বিঃ দ্রঃ
আপনার মন্তব্য বা কমেন্ট ইংরেজি ও বাংলা উভয় ভাষাতেই লিখতে পারেন। বাংলায় কোন মন্তব্য লিখতে হলে কোন ইউনিকোড বাংলা ফন্টেই লিখতে হবে যেমন আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ড (Avro Keyboard)। আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ডের সাহায্যে মাক্রোসফট্ ওয়ার্ডে (Microsoft Word) টাইপ করে সেখান থেকে কপি করে কমেন্ট বা মন্তব্য বক্সে পেস্ট করতে পারেন। আপনার কম্পিউটারে আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ড বাংলা সফ্টওয়ার না থাকলে নিম্নে দেয়া লিঙ্কে (Link) ক্লিক করে ফ্রিতে ডাওনলোড করে নিতে পারেন।
 
Free Download Avro Keyboard  
Name *  
Email *  
Address  
Comments *  
 
 
Posted comments
Till now no approved comments is available.