প্রয়াত অমিয় দেববর্মার ফেলে আসা দিনের স্মৃতিচারনা

নিজস্ব প্রতিবেদন

আগরতলা, সেপ্টেম্বর ২, : আজ এক ভাবগম্ভীর পরিবেশে রাজ্যের লড়াকু উপজাতিয় নেতা প্রয়াত অমিয় কুমার দেববর্মার বর্নময় লড়াকু জীবনের স্মৃতিচারণ করা হয়েছে।বর্ষীয়ান নেতা প্রয়াত অমিয় কুমার দেববর্মা কিভাবে দূঃসময়ে দলকে এগিয়ে নিয়ে যান সেসব তুলে ধরেন দলের নেতা থেকে প্রবীন সাংবাদিকরা।

প্রয়াত নেতার বাসভবনে অনুষ্ঠিত এই স্মৃতিচারণ অনুষ্ঠান শুরু হয় পুষ্পস্তবক অর্পণের মধ্য দিয়ে। উপস্থিত অনুরাগী, সাংবাদিকরা প্রতিকৃতিতে তাদের শ্রদ্ধা অর্পন করেন।

আইএনপিটি র সাধারণ সম্পাদক জগদীশ দেববর্মা প্রয়াত অমিয় দেববর্মা দলের দূঃসময়ের দিনে কিভাবে দলকে এগিয়ে নিয়ে যান এবং দলের নেতাকর্মীদের আইনী লড়াই করে জামিনে মুক্তি লাভের পথ ত্বরান্বিত করেন তা সবিস্তারে বর্ণনা করেন।১৯৮০ সালের জুনের ভয়াবহ ভাতৃঘাতি দাঙ্গায় যখন যুবসমিতির নেতাকর্মীদের মিথ্যা অভিযোগে জেলে পুড়েন তাদের মুক্তি লাভের ব্যবস্থা করে অমিয় দেববর্মা দলের অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখেন।

এ প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে জগদীশ দেববর্মা যুব সমিতির নেতাদের রক্ষার লড়াইয়ে লাগাতার অবস্থান ধর্মঘটের উল্লেখ করেন। বক্তব্য রাখেন মুভমেন্ট ফর ককবরকের নেতা রুহি দেববর্মা, আইএনপিটি সভাপতি বিজয় কুমার রাংখল সহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ। স্মৃতিচারণ করেন প্রবীন সাংবাদিক শেখর দত্ত,সন্জীব দেব ।প্রয়াত নেতার জ্যেষ্ঠ কন্যা অশ্রুসজল কন্ঠে পিতার স্মৃতিচারণ করেন।

আজকের এই স্মৃতিচারণ অনুষ্ঠানে দলীয় নেতা, বুদ্ধিজীবী, ছাত্র নেতা সহ সমাজের অন্যান্য অংশের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।প্রদীপ প্রজ্বলন করে অনুষ্ঠানের সূচনা করেন আইএনপিটি সভাপতি বিজয় কুমার রাংখল। অনুষ্ঠানে প্রয়াত নেতার সহধর্মিণী, তাদের একমাত্র পুত্র ও কন্যা, আত্মীয় স্বজন রাও উপস্থিত ছিলেন।


You can post your comments below  
নিচে আপনি আপনার মন্তব্য বাংলাতেও লিখতে পারেন।  
বিঃ দ্রঃ
আপনার মন্তব্য বা কমেন্ট ইংরেজি ও বাংলা উভয় ভাষাতেই লিখতে পারেন। বাংলায় কোন মন্তব্য লিখতে হলে কোন ইউনিকোড বাংলা ফন্টেই লিখতে হবে যেমন আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ড (Avro Keyboard)। আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ডের সাহায্যে মাক্রোসফট্ ওয়ার্ডে (Microsoft Word) টাইপ করে সেখান থেকে কপি করে কমেন্ট বা মন্তব্য বক্সে পেস্ট করতে পারেন। আপনার কম্পিউটারে আমার বাংলা কিংবা অভ্রো কী-বোর্ড বাংলা সফ্টওয়ার না থাকলে নিম্নে দেয়া লিঙ্কে (Link) ক্লিক করে ফ্রিতে ডাওনলোড করে নিতে পারেন।
 
Free Download Avro Keyboard  
Name *  
Email *  
Address  
Comments *  
 
 
Posted comments
Posted OnNameEmailComment
03.09.2020gautam[email protected]৮০ জুন দাংগায় যুব সমিতির যাদের গ্রেপ্তার কয়ারা হয় তাদের এক আইনজীবি নিজের উদ্যোগে জজামিনের ব্যাবস্তা করেছিলেন এবং আইনী লড়াই করেছিলন তার নাম কোথাও কেউ বলেন না। ফলে ইতিহাস আর প্রকাশ্যে আসেনা। এক দিন সেই ইতিহাস হারিয়ে যাবে।